fbpx

কারেন্ট অ্যাফেয়ার্স ১৪ মে ২০২০


আন্তর্জাতিক

  • গোটা বিশ্বে করোনা ভাইরাস সংক্রমণে মৃতের সংখ্যা ৩ লক্ষ অতিক্রম করে গেল৷ সংক্রমিত হয়েছেন মোট ৪৪,৯৮,১১২ জন৷ রাশিয়ায় গত ২৪ ঘণ্টায় ৯ হাজার ৯৭৪ জন, ব্রাজিলে ১১ হাজার ৪০০ জন আক্রান্ত হয়েছেন এই সংক্রমণে৷ মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে মোট ৮৫,১৯৭ জনের মৃত্যু হয়েছে করোনায়৷ এদিন মেট্রো রেল চালু হল প্যারিসে৷ জাপানও লকডাউন শিথিল করার ইঙ্গিত দিল৷
  • বেঞ্জামিন নেতানিয়াহুর নেতৃত্বে নতুন সরকার শপথ গ্রহণ করল ইজরায়েল৷ ৩ বার সাধারণ নির্বাচনেও সংখ্যাগরিষ্ঠতা নিশ্চিত না হওয়ায় অভিনব পথ নিল ইজরায়েলের রাজনৈতিক দলগুলি৷ তারা ঠিক করেছে ১৮ মাস পর বিরোধী দলনেতা বেনি গনিজ প্রধানমন্ত্রী পদে বসবেন৷

 

জাতীয়

  • দেশে কোভিড ১৯-এ আক্রান্ত হয়েছেন ৭৮,০০৩ জন৷ মৃত্যু হয়েছে ২,৫৪৯ জনের৷ মহারাষ্ট্রে ৯২১ জনের প্রাণহানি হয়েছে৷ মুম্বইতে ৫৫৬ জনের৷ তামিলনাড়ুর কোয়েম্বেদু পাইকারি বাজারে ২,৬০০ জন করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন৷ কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্যমন্ত্রী হর্ষবর্ষন জানিয়েছেন, সুস্থতার হার ৩৩.৬৩ শতাংশ৷ দেশে ১৩.৯ দিনে আক্রান্তের সংখ্যা দ্বিগুণ হচ্ছে৷ এখনও পর্যন্ত সংক্রমণ মুক্ত একমাত্র রাজ্য হল সিকিম৷ পশ্চিমবঙ্গে আক্রান্তের সংখ্যা ২,২৯০৷ ২০৭ জনের প্রাণহানি হয়েছে এই রাজ্যে৷ এদিকে ৩০ জুন পর্যন্ত সংরক্ষিত সমস্ত ট্রেনের টিকিট বাতিল করল রেল কর্তৃপক্ষ৷ তবে বিশেষ ট্রেন চলবে৷ বাতিল টিকিটের ভাড়া ৬ মাস সময়ের মধ্যে যাত্রীরা ফেরত নিতে পারবেন বলে জানানো হল৷

 

বিবিধ

একই দিনে প্রয়াণ ঘটল দুই বাংলার দুই প্রবাদপ্রতীম সাহিত্য ব্যক্তিত্বের৷ দুজনেরই বয়স হয়েছিল ৮৩ বছর৷ দেবেশ রায় শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করলেন কলকাতায়৷ তাঁর জন্ম হয়েছিল ওপার বাংলার পাবনায়৷ কৈশোর, যৌবন কেটেছে উত্তরবঙ্গে৷ আনিসুজ্জামান শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করলেন ঢাকায়৷ তাঁর জন্ম হয়েছিল বসিরহাটে৷ কৈশোর কেটেছিল কলকাতাতেই৷ দেবেশ রায় প্রচলিত ছক ভেঙে উপন্যাসে বহুশ্বর নিয়ে আসেন৷ তাঁর উল্লেখযোগ্য কয়েকটি উপন্যাস হল সময় অসময়ের বৃত্তান্ত, লগন গান্ধার, মানুষ খুন করে কেন, মফঃস্বলি বৃত্তান্ত প্রভৃতি৷ তিনি “তিস্তা পারের বৃত্তান্ত” উপন্যাসের জন্য সাহিত্য আকাদেমি পুরস্কার পেয়েছিলেন৷ দীর্ঘ এক দশক তিনি পরিচয় পত্রিকার সম্পাদনা করেন৷ আবু তৈয়ব মহমম্দ আনিসুজ্জামান ছিলেন লেখক, গবেষক, শিক্ষাবিদ, মুক্তিযুদ্ধের সংগঠক এবং মৌলবাদের বিরুদ্ধে আন্দোলনের পুরোধা৷ চট্টগ্রাম ও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে অধ্যাপনা করেছেন তিনি৷ দিল্লি, করাচি, লন্ডন, টোকিও, কিয়োটো, মনট্রিল, ব্লমিংটন, অক্সফোর্ড সাসেক্স, সানফ্রান্সিসকোতেও গবেষণা করেছেন৷ তাঁর লেখা গ্রন্থের মধ্যে কয়েকটি হল “স্বরূপের সন্ধানে”, “পুরোনো বাংলা গদ্য”, “আমার একাত্তর”, “আমার চোখে”, “মুসলিম মানুষ ও বাংলা সাহিত্য”, “মুক্তিযুদ্ধ এবং তার পর” প্রভৃতি৷ তাঁর আত্মজীবনীর নাম “বিপুলা পৃথিবী”৷ বাংলাদেশের জাতীয় অধ্যাপক আনিসুজ্জামান একুশে পদক, স্বাধীনতা পুরস্কার, বাংলা আকাদেমি সাহিত্য পুরস্কার, পদ্মভূষণ, আনন্দ পুরস্কার পেয়েছেন৷ কলকাতা ও রবীন্দ্রভারতী বিশ্ববিদ্যালয় থেকে তিনি পেয়েছেন যথাক্রমে জগত্তারিনী পদক ও ডিলিট৷ বাংলাদেশে জাতীয় শিক্ষা কমিশনের সদস্য ছিলেন তিনি৷

 

খেলা

  • কেন্দ্রীয় সরকারের কাছে রাজীব খেলরত্ন পুরস্কার, দ্রোণাচার্য পুরস্কার এবং অর্জুন পুরস্কারের জন্য যথাক্রমে অঞ্জুম মুদগিল, যশপাল রানা এবং সৌরভ চৌধুরি, অভিষেক ভার্মার নাম সুপারিশ করল জাতীয় রাইফেল সংস্থা৷

 

 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *