কেন্দ্রীয় বিদ্যালয়ের প্রার্থী বাছাই ও আবেদনের পদ্ধতি

আবেদনের পদ্ধতি:

www.kvsangathan.nic.in ওয়েবসাইটে গিয়ে অনলাইন আবেদন করতে হবে।

বৈধ ইমেল আইডি ও ফোন নম্বর থাকতে হবে।

ডেপুটি কমিশনার, অ্যাসিস্ট্যান্ট কমিশনার, অ্যাডমিনিস্ট্রেটিভ অফিসার পদের ক্ষেত্রে আবেদনের ফি ১২০০ টাকা।বাকি পদগুলির ক্ষেত্রে আবেদনের ফি ৭৫০ টাকা।

সবকটি পদের ক্ষেত্রেই তপশিলি জাতি/ উপজাতি, শারীরিক প্রতিবন্ধী ও প্রাক্তন সেনাকর্মীদের আবেদনের ফি দিতে হবে না।

ডেবিট কার্ড/ ক্রেডিট কার্ড/ নেট ব্যাঙ্কিংয়ের মাধ্যমে ফি দেওয়া যাবে।

অনলাইন আবেদন করার আগে ছবি ও স্বাক্ষর স্ক্যান করে রাখতে হবে নির্দেশমতো মাপে। অনলাইন আবেদন করার সময় ছবি ও স্বাক্ষর নির্দিষ্ট স্থানে আপলোড করতে হবে।

অনলাইন আবেদন করা যাবে ১১ জানুয়ারি ২০১৮ তারিখ রাত ১১.৫৯ পর্যন্ত।

বেতনক্রম: মূল বেতন ডেপুটি কমিশনার ও অ্যাসিস্ট্যান্ট কমিশনার পদের ক্ষেত্রে লেভেল ১২ অনুযায়ী ৭৮৮০০-২০৯২০০ টাকা। অ্যাডমিনিস্ট্রেটিভ অফিসারের ক্ষেত্রে লেভেল ১০ অনুযায়ী ৫৬১০০-১৭৭৫০০ টাকা। ফিনান্স অফিসার, অ্যাসিস্ট্যান্ট ইঞ্জিনিয়ার ও লাইব্রেরিয়ান পদের ক্ষেত্রে লেভেল ৭ অনুযায়ী ৪৪৯০০-১৪২৪০০ টাকা। অ্যাসিস্ট্যান্ট ও হিন্দি ট্ট্র্যানস্লেটর পদে লেভেল ৬ অনুযায়ী ৩৫৪০০-১১২৪০০ টাকা। আপার ডিভিশন ক্লার্ক ও স্টেনোগ্রাফার পদে ২৫৫০০-৮১১০০ টাকা। লোয়ার ডিভিশন ক্লার্ক পদে লেভেল ২ অনুযায়ী ১৯৯০০-৬৩২০০ টাকা।

প্রার্থী বাছাই পদ্ধতি:

অ্যাসিস্ট্যান্ট কমিশনার পদের ক্ষেত্রে লেখা পরীক্ষা ও ইন্টারভিউয়ের মাধ্যমে প্রার্থী বাছাই করা হবে। ১৮০টি অবজেক্টিভ মাল্টিপল চয়েস টাইপের প্রশ্ন থাকবে। সময় ৩ ঘণ্টা।

অ্যাডমিনিস্ট্রেটিভ অফিসার পদের ক্ষেত্রে লেখা পরীক্ষা ও ইন্টারভিউয়ের মাধ্যমে প্রার্থী বাছাই করা হবে। ২০০ নম্বরের অবজেক্টিভ মাল্টিপল চয়েস টাইপের প্রশ্ন হবে।

ফিনান্স অফিসার পদের ক্ষেত্রে লেখা পরীক্ষা, স্কিল টেস্ট ও ইন্টারভিউয়ের মাধ্যমে প্রার্থী বাছাই করা হবে। ১৬০ নম্বরের অবজেক্টিভ মাল্টিপল চয়েস টাইপের প্রশ্ন হবে।

অ্যাসিস্ট্যান্ট পদের ক্ষেত্রে লেখা পরীক্ষা ও স্কিল টেস্টের মাধ্যমে প্রার্থী বাছাই করা হবে।

হিন্দি ট্ট্র্যানস্লেটর পদের ক্ষেত্রে লেখা পরীক্ষা ও ইন্টারভিউয়ের মাধ্যমে প্রার্থী বাছাই হবে।

আপার ডিভিশন ক্লার্কের ক্ষেত্রে লেখা পরীক্ষা ও স্কিল টেস্টের মাধ্যমে প্রার্থী বাছাই।

স্টেনোগ্রাফার গ্রেড টু ও লোয়ার ডিভিশন ক্লার্ক পদের ক্ষেত্রে লেখা পরীক্ষা ও স্কিল টেস্টের মাধ্যমে প্রার্থী বাছাই হবে।

লাইব্রেরিয়ান পদের ক্ষেত্রে লেখা পরীক্ষা ও ইন্টারভিউয়ের মাধ্যমে প্রার্থী বাছাই করা হবে।

পরীক্ষাকেন্দ্র (কলকাতা, জামশেদপুর, রাঁচি, ভুবনেশ্বর, কটক, বেরহ্যামপুর, পাটনা, মজফফরপুর ইত্যাদি) ও সেন্টার কোড সম্পর্কে বিস্তারিত জানা যাবে ওয়েবসাইটে।

 

 

 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *