রেল গ্রুপ ডি, এনটিপিসি পরীক্ষা কবে , চিন্তায় কোটির বেশি চাকরিপ্রার্থী

252
0
exam syllabus

রেলের একাধিক পরীক্ষা নিয়ে ধোঁয়াশায় চাকরিপ্রাথীরা।  যতদিন যাচ্ছে সংশয় বাড়ছে।

২০১৯ সালের ভারতীয় রেলবিভাগে বিভিন্ন ক্ষেত্রে লক্ষাধিক শূন্যপদ পূরণের জন্য বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করা হয়েছিল। ২০২০ সালের ফেব্রুয়ারি মাসে এসেও এখনও একাধিক পরীক্ষার তারিখই জানানো হয়নি। অপেক্ষায় রয়েছেন সারা দেশের কয়েক কোটি চাকরি প্রার্থী।

একটু পরিসংখ্যান মিলিয়ে দেখা যাক। গত বছর রেলের যে কয়টি গুরুত্বপূর্ণ নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি প্রকাশিত হয়েছিল, তার মধ্যে ফেব্রুয়ারি, ২০১৯ প্রকাশিত হয় রেলের গ্রুপ ডি পদে নিয়োগ পরীক্ষার বিজ্ঞপ্তি। শূন্যপদ ছিল ১ লক্ষ ৩ হাজার ৭৬৯টি।  আবেদন জমা পড়েছে ১ কোটি ১৫ লক্ষ ৬৭ হাজার ২৪৮টি। অন্যদিকে, আরেকটি গুরুত্বপূর্ণ বিজ্ঞপ্তি প্রকাশিত হয়, এনটিপিসির। এর শূন্যপদ ছিল ৩৫ হাজার ২৭৭টি। এই পরীক্ষার জন্য আবেদন জমা পড়েছে ১ কোটি ২৬ লক্ষ ৩০ হাজার ৮৮৫টি। স্বাভাবিকভাবে বোঝাই যাচ্ছে, শুধুমাত্র এই দুটি পরীক্ষার জন্য সারা দেশ থেকে আড়াই কোটির বেশি আবেদন জমা পড়েছে। গত বছর জুন থেকে সেপ্টেম্বরের মধ্যে পরীক্ষা হওয়ার কথা ছিল। সেটা না হয়ে পরে ডিসেম্বর নাগাদ পরীক্ষা হওয়ার কথা বলা হয়। উভয় ক্ষেত্রেই প্রথম স্তরে কম্পিউটার ভিত্তিক পরীক্ষা নেওয়ার কথা। অথচ এখনো পর্যন্ত কোনো পরীক্ষার নির্দিষ্ট খবর নেই।

অসমর্থিত সূত্রে যেটুকু খবর পাওয়া গেছে তাতে এত বিশাল সংখ্যক পরীক্ষা অনুষ্ঠিত করার জন্য এজেন্সি ঠিক করা হচ্ছে। উপযুক্ত বেসরকারি এজেন্সি পাওয়া গেলে খুব তাড়াতাড়ি পরীক্ষার তারিখ ঘোষণা করা হবে। পরীক্ষার তারিখ ঘোষণা হলে তার  চার দিন আগে অ্যাডমিট কার্ড দেওয়া শুরু হয়ে যাবে।

তবে বছর ঘুরে যাওয়ায় এখন পর্যন্ত পরীক্ষার কোনো নিৰ্দিষ্ট খবর না থাকায় চিন্তায় রয়েছেন চাকরিপ্রাথীরা। ইতিমধ্যে কেন্দ্রীয় সরকার আবার ঘোষণা করেছে, জাতীয় স্তরে একটি ন্যাশনাল রিক্রুটমেন্ট বোর্ড গঠন করবে। যে খবর জীবিকা দিশারিতে আগেই জানানো হয়েছিল।  সেই বোর্ডের মাধ্যমে নন-গেজেটেড কেন্দ্রীয় সরকারি সব পদের জন্য অভিন্ন পরীক্ষা নেওয়া হবে।  সেক্ষেত্রে রেলের গ্রুপ ডি, এনটিপিসির মতো পরীক্ষাগুলোর পড়ার কথা। সেই বোর্ড গঠন করে কাজ চালু করার এখনো কোনো খবর নেই। রেলের সংশ্লিট পরীক্ষাগুলি ওই বোর্ডের মাধ্যমে নেওয়া হবে নাকি সেন্ট্রাল বোর্ড গঠনের আগেই হয়ে যাবে সে ব্যাপারে ধোঁয়াশা রয়েছে। দীর্ঘদিন যাবৎ কেন্দ্রীয় স্তরে এত বড় সংখ্যক চাকরিতে নিইয়োগ আটকে থাকায় চিন্তায় থাকতে হচ্ছে সরকারি চাকরি প্রাথীদের।

 

 

Rail, Railway Recruitment, Central Govt Jobs