fbpx

রাজ্য বিদ্যুতে ২৯১ টিচার, এগজিকিউটিভ, অ্যাসিস্ট্যান্ট নিয়োগ

ওয়েস্ট বেঙ্গল পাওয়ার ডেভলপমেন্ট কর্পোরেশন লিমিটেডে ২৯১ জন অপারেশন অ্যান্ড মেন্টেন্যান্স সুপারভাইজার প্রেবেশনার, কেমিস্ট-প্রোবেশনার, জুনিয়র পার্সোনাল অ্যাসিস্ট্যান্ট, অফিস এগজিকিউটিভ, অপারেটর/ টেকনিশিয়ান প্রোবেশনার ও অ্যাসিস্ট্যান্ট টিচার (হাইস্কুল) নিয়োগ করা হবে। এমপ্লয়মেন্ট নোটিফিকেশন নম্বর WBPDCL/Recruitment/2018/09.
শূন্যপদ: অপারেশন অ্যান্ড মেন্টেন্যান্স সুপারভাইজার প্রোবেশনার: শূন্যপদ ২০ (মেকানিক্যাল ১৪, ইলেক্ট্রিক্যাল ৬)। কেমিস্ট প্রোবেশনার: ১৮। জুনিয়র পার্সোনাল অ্যাসিস্ট্যান্ট: ১০। অফিস এগজিকিউটিভ: ২৫। অপারেটর/ টেকনিশিয়ান প্রোবেশনার: ২০০ (ফিটার ১৪০, ইলেক্ট্রিশিয়ান ৬০)। অ্যাসিস্ট্যান্ট টিচার (হাই স্কুল): শূন্যপদ ১৭ (ফিজিক্স ১, সংস্কৃত ১, এডুকেশন ১, ইংলিশ ৫, বায়োলজি ৪, ম্যাথমেটিক্স ২, হিস্ট্রি ১, ফিজিক্যাল এডুকেশন ১, ওয়ার্ক এডুকেশন ১)।
বেতনক্রম: অপারেশন অ্যান্ড মেন্টেন্যান্স সুপারভাইজার প্রোবেশনার পদের ক্ষেত্রে ৬৩০০-২০২০০ টাকা, গ্রেড পে ৪৪০০ টাকা। কেমিস্ট পদের ক্ষেত্রে ৬৩০০-২০২০০ টাকা, গ্রেড পে ৪৪০০ টাকা। জুনিয়র পার্সোনাল অ্যাসিস্ট্যান্ট ৬৩০০-২০২০০ টাকা, গ্রেড পে ৩৯০০ টাকা। অফিস এগজিকিউটিভ ৬৩০০-২০২০০ টাকা, গ্রেড পে ৩৬০০ টাকা। অপারেটর/ টেকনিশিয়ান প্রোবেশনার পদের ক্ষেত্রে ৬৩০০-২০২০০ টাকা, গ্রেড পে ২৬০০ টাকা। অ্যাসিস্ট্যান্ট টিচার ৯০০০-৪০৫০০ টাকা, অনার্স গ্র্যাজুয়েটদের ক্ষেত্রে ৪৭০০ টাকা ও পোস্ট গ্র্যাজুয়েটদের ক্ষেত্রে ৪৮০০ টাকা গ্রেড পে।
যোগ্যতা: অপারেশন অ্যান্ড মেন্টেন্যান্স সুপারভাইজার প্রোবেশনার: মেকানিক্যালের ক্ষেত্রে ন্যূনতম ৬০ শতাংশ নিয়ে মেকানিক্যাল ইঞ্জিনিয়ারিংয়ে পূর্ণ সময়ের ডিপ্লোমা বা ল্যাটারেল এন্ট্রি ডিপ্লোমা। ইলেক্ট্রিক্যালের ক্ষেত্রে ইলেক্ট্রিক্যাল ইঞ্জিনিয়ারিংয়ে পূর্ণ সময়ের ডিপ্লোমা বা ল্যাটারেল এন্ট্রি ডিপ্লোমা।
কেমিস্ট প্রোবেশনারি: কেমিস্টে বিএসসি অনার্স। জুনিয়র পার্সোনেল অ্যাসিস্ট্যান্ট: ন্যূনতম ৫০ শতাংশ নম্বর নিয়ে যে কোনো শাখায় গ্র্যাজুয়েট সঙ্গে ইংরেজি ভাষায় দক্ষতা থাকতে হবে। প্রতি মিনিটে ১০০ শব্দের গতিতে শর্টহ্যান্ড, কম্পিউটার কি ডিপ্রেসন প্রতি ঘণ্টায় ৮০০০। বাংলা ফন্টে টাইপের জ্ঞান বাঞ্ছনীয়।
অফিস এগজিকিউটিভ: ন্যূনতম ৫০ শতাংশ নম্বর নিয়ে যে কোনো শাখায় গ্র্যাজুয়েট।
অপারেটর/ টেকনিশিয়ান প্রোবেশনার (ফিটার, ইলেক্ট্রিশিয়ান): ৫০ শতাংশ নম্বর নিয়ে মাধ্যমিক পাশ সঙ্গে ট্রেড সার্টিফিকেট (দু বছরের পূর্ণ সময়ের)/ বোর্ড বেসড বেসিক ট্রেনিং (বিবিবিটি)/ ফিটার বা ইলেক্ট্রিশিয়ান ট্রেডে তিন বছরের সময়সীমার ন্যাশনাল অ্যাপ্রেন্টিসশিপ সার্টিফিকেট।
অ্যাসিস্ট্যান্ট টিচার (হাই স্কুল): ওয়ার্ক এডুকেশন ও ফিজিক্যাল এডুকেশন বাদে অন্যান্য ক্ষেত্রে ন্যূনতম ৫০ শতাংশ নম্বর সহ সংশ্লিষ্ট বিষয়ে অনার্স গ্র্যাজুয়েট/ মাস্টার ডিগ্রি। ফিজিক্যাল এডুকেশনের ক্ষেত্রে ফিজিক্স/ কেমিস্ট্রি/ বটানি/ জুলজি/ ফিলোজফিতে অনার্স গ্র্যাজুয়েট ন্যূনতম ৫০ শতাংশ নম্বর নিয়ে। ওয়ার্ক এডুকেশনে বাংলা/ ইংরেজি/ হিস্ট্রি/ জিওগ্রাফিতে অনার্স গ্র্যাজুয়েট ন্যূনতম ৫০ শতাংশ নম্বর নিয়ে সঙ্গে বিএড/ পিজিবিটি (ওয়ার্ক এডুকেশন একটি বিষয় হিসেবে থাকতে হবে)।
সবক্ষেত্রেই স্টেট কাউন্সিল অব টেকনিক্যাল অ্যান্ড ভোকেশনাল এডুকেশন অ্যান্ড স্কিল ডেভলপমেন্ট/ এআইসিটিই/ ইউজিসি স্বীকৃত হতে হবে।
বয়সসীমা: ১ সেপ্টেম্বর ২০১৮ তারিখের হিসেবে বয়সের ঊর্ধ্বসীমা ৩২ বছর। সংরক্ষিত শ্রেণির প্রার্থীরা নিয়ম অনুযায়ী বয়সের ঊর্ধ্বসীমায় ছাড় পাবেন।
আবেদনের ফি: ৩০০ টাকা। রাজ্যের তপশিলি জাতি/ উপজাতি, ইসি, শারীরিক প্রতিবন্ধী ও যোগ্য ডব্লুবিপিডিসিএল-র কন্ট্রাক্ট ওয়াকার্সদের আবেদনের ফি দিতে হবে না। ডেবিট কার্ড/ ক্রেডিট কার্ড/ নেট ব্যাঙ্কিংয়ের মাধ্যমে ফি দেওয়া যাবে।
আবেদনের পদ্ধতি: www.wbpdcl.co.in ওয়েবসাইটে গিয়ে অনলাইন আবেদন করতে হবে। বৈধ ইমেল আইডি ও মোবাইল নম্বর থাকতে হবে। অনলাইন আবেদন করা যাবে ১৬ নভেম্বর ২০১৮ তারিখ পর্যন্ত। অন্যান্য প্রাসঙ্গিক তথ্য উপরোক্ত ওয়েবসাইট থেকে জানা যাবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *